ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ পদ্ধতি | খাজনা রশিদ বের করার নিয়ম

ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ বা খাজনা রশিদ এখন আপনার মোবাইল ফোন থেকে সহজেই সংগ্রহ করে নিতে পারবেন। আমরা অনেকেই মনে করি আমরা যখন অনলাইনে খাজনা বা ভূমি উন্নয়ন কর জমা দিতে যাই তখন ইউনিয়ন ভূমি অফিস অতিরিক্ত চার্জ নেয় বা হয়রানি করে।

সেই নির্দেশনা বিবেচনা করে অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর জমা দেওয়ার সুবিধা নিয়ে আসে বাংলাদেশ ভূমি উন্নয়ন বোর্ড। তাই এখন থেকে আপনি অফিসে না গিয়ে সহজেই আপনার মোবাইল বা যেকোনো বিকাশ পয়েন্ট থেকে ভাড়া পরিশোধ করতে পারবেন। আজ আমি আপনাকে সেই সম্পর্কে বিস্তারিত বলব। মন দিয়ে সম্পূর্ন পোষ্টটি পড়ুন।

অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করতে কি কি তথ্য লাগে

বর্তমানে, কিছু কাগজপত্র বা প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে আপনার বাড়ির জমির খাজনা অনলাইনে পরিশোধ করতে পাররবেন। এই ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় তথ্যগুলি নিচে দেয়া হল:

  • জমির খতিয়ান।
  • পেমেন্ট পরিশোধ করার জন্য একটি নির্দিষ্ট জাতীয় পরিচয়পত্রের তথ্য।
  • জমির অবস্থান অনুসারে, বিভাগ, জেলা, উপজেলা ও মৌজার তথ্য।
  • পেমেন্ট করার জন্য একটি অনলাইন পেমেন্ট মাধ্যম (বিকাশ/ নগদ/ রকেট/ উপায়/ একপে/ DBBL)।
  • একটি স্মার্টফোন/ কম্পিউটার, মোবাইল নাম্বার ও ইন্টারনেট কানেকশন।
আরও পড়ুনঃ  বাংলাদেশের সরকারি ছুটির তালিকা ২০২৪ (সরকারি ছুটির ক্যালেন্ডার ২০২৪)

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর যেভাবে প্রদান করবেন

ভূমি উন্নয়ন কর বা ভাড়ার রশিদ অনলাইনে পরিশোধ করতে প্রথমে আপনাকে আপনার মোবাইলে যেকোনো ব্রাউজার খুলতে হবে। এখন অনলাইনে ভূমি উন্নয়ন কর অনুসন্ধান করুন। নীচের ছবি লক্ষ করুন। সার্চ করার পর আপনি http://idtax.gov.bd এই লিঙ্কে ক্লিক করুন। এবার উপরে দেওয়া প্রথম ছবির মতো একটি ছবি আসবে, এবার নাগরিক কর্নারে ক্লিক করুন। তাহলে আপনাকে যা করতে হবে তা হল-

ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ পদ্ধতি | খাজনা রশিদ বের করার নিয়ম
ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ পদ্ধতি | খাজনা রশিদ বের করার নিয়ম

উপরের ছবি লক্ষ করুন। এভাবে নাগরিক কর্নারে যাবেন। এখানে যাবার পরে আপনি নিবন্ধন করে নিবেন। তারপর লগিন হয়ে আপনার তথ্য সেখানে দিবেন। তারপর নিচের ধাপগুলি অনুসরণ করুন।

Guidelines on Civic Corner
ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ পদ্ধতি | খাজনা রশিদ বের করার নিয়ম
Payment of Fees Online
ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ পদ্ধতি | খাজনা রশিদ বের করার নিয়ম

আপনাকে আপনার বিভাগ, জেলা, উপজেলা, মৌজা নির্বাচন করতে হবে। অবশেষে আপনার খতিয়ান হোল্ডিং নির্বাচন করুন এবং অনুসন্ধান বোতামে ক্লিক করুন। আপনার তথ্য সঠিক হলে আপনার তথ্য নিচের ছবিতে দেখানো হবে। এখন আপনার জাতীয় পরিচয়পত্র/ভোটার আইডি কার্ড আছে যা দিয়ে আপনার খতিয়ান প্রস্তুত করা হয়েছে। সেই তথ্য প্রদান করে তথ্য যাচাই করুন।

আরও পড়ুনঃ  E Porcha gov bd কিভাবে খতিয়ান পর্চা অনুসন্ধান করবেন জেনে নিন | E porcha ki

বিস্তারিত দেখুন এই ভিডিওতে

অনলাইনে জমির খাজনা।

একবার যাচাইকরণ সম্পন্ন হলে আপনাকে আপনার জমির তথ্য দেখানো হবে। আর এতে বকেয়াসহ গৃহীত ভাড়ার পরিমাণ দেখাবে। এছাড়াও, আপনি যদি নীচের পে বিকল্পে ক্লিক করেন, আপনি যে পদ্ধতিগুলি দ্বারা অর্থ প্রদান করতে চান তার একটি তালিকা প্রদর্শিত হবে। তাই আপনি যে মাধ্যম থেকে টাকা জমা করবেন সেটি নির্বাচন করুন। এখন আপনি আপনার বাকি নিয়ম অনুযায়ী টাকা জমা করতে পারেন।

খাজনা রেট ২০২৪ / জমির খাজনা কত টাকা

ভূমি মন্ত্রণালয়ের জারি করা রুলস অনুযায়ী জমির খাজনা নির্ধারিত। নিচে তথ্য দেওয়া হলোঃ

আরও পড়ুনঃ  Framing the Profile Picture Girl: A Study of Gender, Identity, and Digital Culture

ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ রশিদ ফরম ডাউনলোড

যে প্লাটফর্মের মাধ্যমে আপনি অর্থপ্রদান করবেন সে কতৃপক্ষ আপনাকে আপনার লেনদেন নম্বর সহ একটি ভাউচার দেবে। এবং এই লেনদেন নম্বর দিয়ে, আপনি যে কোনো সময় ইউনিয়ন ভূমি অফিস থেকে আপনার রসিদ সংগ্রহ করতে পারবেন।

শেষ কথা

অনলাইন ভূমি উন্নয়ন কর বা খাজনা রশিদ আপনি নিজেই সংগ্রহ করতে পারেন এবং আপনার মোবাইল দিয়ে আপনার খতিয়ান ট্যাক্স বা খাজনা জমা দিতে পারেন। জমি সংক্রান্ত যে কোন তথ্য পেতে আমাদের সাথেই থাকুন, আপনার যা প্রয়োজন তা জানতে কমেন্ট করুন। এছাড়া আমাদের Whatsapp গ্রুপে যুক্ত থাকুন। আমাদের অফিসিয়াল ফেসবুকে যুক্ত থাকতে পারেন। এতে আপনারা আরো তারাতারি যেকোনো তথ্য পাবেন। সবাইকে ধন্যবাদ।

About the Author

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You may also like these

Share via
Copy link